প্রিন্ট

24/07/2024
Laws of Bangladesh

ইপিজেড শ্রমিক সংঘ ও শিল্প সম্পর্ক আইন, ২০০৪

( ২০০৪ সনের ২৩ নং আইন )

তৃতীয় অধ্যায়

শ্রমিক সংঘ

শ্রমিক সংঘের নিবন্ধনচ্যুতি
৩৫৷ (১) কোন শ্রমিক সংঘ বহাল থাকাকালীন যে কোন সময়ে অন্যুন ৩০% যোগ্য শ্রমিক নির্ধারিত ফরমে নির্বাহী চেয়ারম্যানের নিকট আবেদন করিয়া সংঘের নিবন্ধনচ্যুতি দাবী করিতে পারিবেন৷
 
 
 
 
(২) উপ-ধারা (১)-এর অধীন আবেদন প্রাপ্তির পর নির্বাহী চেয়ারম্যান সংঘের অনুরূপ নিবন্ধনচ্যুতির পক্ষে উত্থাপিত দাবী যাচাই করিবার উদ্দেশ্য পরীক্ষা করিয়া দেখিবেন যে, প্রকৃতই অন্যুন ৩০% যোগ্য শ্রমিক স্বাক্ষর কিংবা অঙ্গুলির ছাপ প্রদান করিয়া আবেদন করিয়াছেন কিনা৷
 
 
 
 
(৩) নির্বাহী চেয়ারম্যান উপ-ধারা (২)-এর অধীন সন্তুষ্ট হইয়া থাকিলে, তিনি নিবন্ধনচ্যুতির পক্ষে সমর্থন যাচাই করিবার উদ্দেশ্যে ৫ দিবসের মধ্যে গোপন ব্যালটের মাধ্যমে যোগ্য শ্রমিকদের ভোট গ্রহণের জন্য গণভোট অনুষ্ঠান করিবেন৷
 
 
 
 
(৪) যদি গণভোট যোগ্য শ্রমিকগণের ৫০ শতাংশের অধিক শ্রমিক ভোট প্রদান করিয়া থাকেন এবং অনুরূপ প্রদত্ত ভোটের ৫০ শতাংশের অধিক ভোট যদি সংঘের নিবন্ধনচ্যুতির পক্ষে হইয়া থাকে, তাহা হইলে নির্বাহী চেয়ারম্যান উহার পরবর্তী ২৫ দিনের মধ্যে নিবন্ধনচ্যুতি প্রচার করিয়া একটি আদেশ জারী করিবেন৷
 
 
 
 
(৫) উপ-ধারা (৩)-এর অধীন অনুষ্ঠিত গণভোটের ফলাফলের ভিত্তিতে যদি পরিশেষে কোন শ্রমিক সংঘের নিবন্ধনচ্যুতি না হইয়া থাকে, তাহা হইলে উক্ত কারণে কোন মালিক কোন প্রকারেই কোন শ্রমিকের প্রতি উপ-ধারা (১)-এর অধীন দরখাস্তে স্বাক্ষর করিবার জন্য কোনরূপ বৈষম্যমূলক আচরণ করিবেন না; এবং এইরূপ কোন বৈষম্যমূলক আচরণ ধারা ৪১-এর অধীন মালিক পক্ষে অন্যায় আচরণ হিসাবে গণ্য হইবে৷
 
 
 
 
(৬) এই ধারার অধীন অনুষ্ঠেয় গণভোট বিষয়ে কর্তৃপক্ষ প্রবিধি দ্বারা পদ্ধতি ও অন্যান্য বিষয় নির্ধারণ করিবে৷
 
 
 
 
(৭) এই ধারার অধীন কোন সংঘ নিবন্ধনচ্যুত হইয়া থাকিলে, নিবন্ধনচ্যুতি সম্পর্কিত প্রজ্ঞাপনের তারিখ হইতে পরবর্তী এক বত্সর অতিবাহিত হইবার পূর্বে সংশ্লিষ্ট শিল্প ইউনিটের পুনরায় কোন সংঘ গঠন করা যাইবে না৷
 
 
 
 
(৮) কোন শ্রমিক কর্তৃক উপ-ধারা (১)-এর অধীন স্বাক্ষরিত কোন ফরম স্বাক্ষরের তারিখ হইতে ছয় মাস পর্যন্ত বৈধ থাকিবে৷

Copyright © 2019, Legislative and Parliamentary Affairs Division
Ministry of Law, Justice and Parliamentary Affairs