প্রিন্ট

12/07/2024
Laws of Bangladesh

অর্থ আইন, ১৯৯৩

( ১৯৯৩ সনের ১৮ নং আইন )

১৯৯১ সনের ২২ নং আইনের সংশোধন
৮৷ মূল্য সংযোজন কর আইন, ১৯৯১ (১৯৯১ সনের ২২ নং আইন) এর-
 
 
 
 
(১) ধারা ২ এর দফা (ভ) এর “মূল্য সংযোজন কর” শব্দগুলির পর “বা আগাম আয়কর” শব্দগুলি সন্নিবেশিত হইবে;
 
 
 
 
(২) ধারা ৬ এর উপ-ধারা (৪) এর পর নিম্নরূপ উপ-ধারাগুলি সন্নিবেশিত হইবে, যথা:-
 
 
 
 
“(৪ক) এই ধারার অন্যান্য বিধানাবলী সত্বেও, কোন নির্মাণ সংস্থা, ইনডেন্টিং সংস্থা, ট্রাভেল এজেন্সি, মোটর গাড়ীর গ্যারেজ ও ওয়ার্কসপ এবং ডকইয়ার্ড এবং সরকার কর্তৃক সরকারী গেজেটে প্রজ্ঞাপন দ্বারা এতদুদ্দেশ্যে সময় সময়, নির্ধারিত কোন সেবা প্রদানকারী ব্যক্তি কর্তৃক প্রদেয় মূল্য সংযোজন কর সেবা গ্রহণকারী বা, ক্ষেত্রমত মূল্য বা কমিশন পরিশোধকারী ব্যক্তিকে সেবা মূল্য বা কমিশন পরিশোধকালে বিধি দ্বারা নির্ধারিত পদ্ধতিতে উত্সে আদায়, কর্তন ও সরকারী ট্রেজারীতে জমা করিতে হইবে৷
 
 
 
 
(৪খ) উপ-ধারা (৪ক) এর অধীন উত্সে মূল্য সংযোজন কর আদায় বা কর্তনকারী ব্যক্তি উক্তরূপ আদায় বা কর্তন সম্পর্কে সংশ্লিষ্ট সেবা প্রদানকারী ব্যক্তিকে অনুরূপ আদায় বা কর্তক সম্পর্কে বিধি দ্বারা নির্ধারিত পদ্ধতিতে একটি প্রত্যয়নপত্র প্রদান করিবেন, যাহাতে নিম্নবর্ণিত তথ্যাদি অন্তর্ভুক্ত থাকিবে, যথা:-
 
 
 
 
(অ) মূল্য সংযোজন করদাতার নিবন্ধন সংখ্যা;
 
 
 
 
(আ) প্রদত্ত সেবা বাবদ পরিশোধিত মোট সেবা মূল্য বা কমিশন;
 
 
 
 
(ই) মূল্য সংযোজন কর নিরূপণযোগ্য সেবা মূল্য বা কমিশন;
 
 
 
 
(ঈ) আদায় বা কর্তনকৃত মূল্য সংযোজন করের পরিমাণ; এবং
 
 
 
 
(উ) বিধি অনুযায়ী প্রয়োজনীয় অন্য কোন তথ্য৷
 
 
 
 
(৪গ) উপ-ধারা (৪ক) অনুযায়ী উত্সে মূল্য সংযোজন কর আদায়/কর্তন এবং জমা প্রদানের বাধ্যবাধকতা থাকা সত্বেও যদি উক্ত উপ-ধারার অধীন সেবা মূল্য বা কমিশন পরিশোধকারী ব্যক্তি মূল্য সংযোজন কর আদায়/কর্তন ও জমা প্রদানে ব্যর্থ হন তাহা হইলে,-
 
 
(অ) উক্ত মূল্য সংযোজন কর সেবা মূল্য বা কমিশন পরিশোধকারী ব্যক্তির নিকট হইতে মাসিক দুই শতাংশ হারে, সুদসহ আদায়যোগ্য হইবে এবং উহা এইরূপে আদায় করা হইবে যেন তিনি উপ-ধারা (৪ক) এর অধীন একজন সেবা প্রদানকারী ব্যক্তি;
 
 
 
 
(আ) উপ-ধারা (৪ক) এর অধীন উত্সমূলে আদায়কৃত, কর্তিত ও জমাকৃত মূল্য সংযোজন কর এই আইনের বিধানাবলী অনুযায়ী সংশ্লিষ্ট সেবা প্রদানকারী ব্যক্তির পক্ষে পরিশোধিত হইয়াছে বলিয়া গণ্য হইবে এবং উপ-ধারা (৪খ) এর অধীন প্রদত্ত প্রত্যয়নপত্র বলবত্ থাকা সাপেক্ষে ধারা ৩৫ এ উল্লিখিত দাখিলপত্রে সংশ্লিষ্ট সেবা প্রদানকারী কর্তৃক পরিশোধিত কর হিসাবে উল্লেখ করা যাইবে;
 
 
 
 
(৩) ধারা ১৩ এর উপ-ধারা (৩) এর পর নিম্নরূপ উপ-ধারা (৪) সংযোজিত হইবে, যথা:-
 
 
 
 
“(৪) বোর্ড, সরকারী গেজেটে জারীকৃত আদেশ দ্বারা, আদেশে উল্লিখিত শর্ত সাপেক্ষে কোন আন্তর্জাতিক চুক্তি বাস্তবায়নের জন্য স্থানীয়ভাবে উত্পাদিত কোন পণ্য বা সেবার উপর কোন ব্যক্তি বা সংস্থা কর্তৃক পরিশোধিত মূল্য সংযোজন কর বা, ক্ষেত্রমত, মূল্য সংযোজন কর ও সম্পূরক শুল্ক প্রত্যর্পণের নির্দেশ প্রদান করিতে পারিবে৷”
 
 
 
 
(৪) ধারা ২৬ এর উপ-ধারা (২) এর পর নিম্নরূপ নূতন উপ-ধারা (৩) সংযোজিত হইবে, যথা:-
 
 
 
 
“(৩) কোন নিবন্ধিত বা নিবন্ধনযোগ্য ব্যক্তির মজুদ পণ্য পরিদর্শন ও হিসাব পরীক্ষা করিবার জন্য বোর্ড, আদেশ দ্বারা কোন নিরীক্ষক (অডিটর) নিয়োগ করিতে পারিবে, এবং উক্ত নিয়োগপ্রাপ্ত নিরীক্ষক এই ধারার উদ্দেশ্যে একজন মূল্য সংযোজন কর কর্মকর্তা হিসাবে বিবেচিত হইবেন৷”
 
 
 
 
(৫) ধারা ৩৭ এর উপ-ধারা (৪) এর পর নিম্নরূপ নূতন উপ-ধারা (৫) সংযোজিত হইবে, যথা:-
 
 
 
 
“(৫) সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিকে যুক্তিসঙ্গত শুনানীর সুযোগ (সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি ইচ্ছা করিলে ব্যক্তিগতভাবে বা তাহার মনোনীত কৌশলীর মাধ্যমে শুনানীর সুযোগসহ) প্রদান না করিয়া তাহার উপর এই ধারার অধীন কোন অর্থদন্ড, কোন ম্যাজিষ্ট্রেটের আদালত কর্তৃক দন্ডারোপ ব্যতীত, আরোপ করা যাইবে না বা তাহার ব্যবসায় অঙ্গন তালাবদ্ধ করা যাইবে না৷”
 
 
 
 
(৬) ধারা ৪৮ এর “বোর্ড” শব্দটির পর “অথবা বোর্ডের নিকট হইতে এতদুদ্দেশ্যে ক্ষমতাপ্রাপ্ত যথাযথ এখতিয়ারসম্পন্ন কালেক্টর, মূল্য সংযোজন কর বা পদমর্যাদায় সহকারী কালেক্টর, মূল্য সংযোজন কর- এর নিম্ন নহেন এইরূপ কোনরূপ কোন মূল্য সংযোজন কর কর্মকর্তা শব্দগুলি ও কমাগুলি সন্নিবেশিত হইবে;
 
 
(৭) ধারা ৭৩ এর উপ-ধারা (৪) এর পরিবর্তে নিম্নরূপ উপ-ধারা (৪) প্রতিস্থাপিত হইবে, যথা:-
 
 
 
 
“(৪) উপ-ধারা (৩) এর অধীন রহিতকরণ সত্ত্বেও, রহিত অধ্যাদেশের অধীন-
 
 
 
 
(ক) কৃত সকল কাজকর্ম বা গৃহীত সকল ব্যবস্থা এই আইনের অধীনে কৃত বা গৃহীত হইয়াছে বলিয়া গণ্য হইবে; এবং
 
 
 
 
(খ) প্রণীত সকল বিধি, প্রদত্ত সকল আদেশ ও জারীকৃত সকল প্রজ্ঞাপন বা নোটিশ, এই আইনের বিধানাবলীর সহিত সামঞ্জস্যপূর্ণ হওয়া সাপেক্ষে, রহিত বা সংশোধিত না হওয়া পর্যন্ত, বলবত্ থাকিবে এবং এই আইনের অধীন প্রণীত, প্রদত্ত বা জারীকৃত হইয়াছে বলিয়া গণ্য হইবে৷”
 
 
 
 
(৮) তৃতীয় তফসিলের পরিবর্তে এই আইনের চতুর্থ তফসিলে বর্ণিত তফসিল প্রতিস্থাপিত হইবে৷

Copyright © 2019, Legislative and Parliamentary Affairs Division
Ministry of Law, Justice and Parliamentary Affairs